বঙ্গোপোসাগরে সৃষ্টি হচ্ছে ঘূর্ণিঝড় “যশ”, গন্তব্য সুন্দরবন

গত বছর ২০২০ সালের এ মে মাসেই বাংলাদেশের দক্ষিণ-পশ্চিম অঞ্চল ও ভারতের ওড়িশ্যায় আঘাত হেনেছিলো ঘূর্ণিঝড় আম্ফান। এ মাসেই ঘূর্ণিঝড় হবার আশংকা করা হয়েছিলো। এখন সে আশংকাটাই সত্যি হতে চলেছে। বঙ্গোপোসাগরে সৃষ্টি হচ্ছে নিন্মচাপ যা আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে ঘূর্ণিঝড়ে রুপান্তরিত হয়ে আছড়ে পড়তে পারে সুন্দরবনে। ভারতের আবহাওয়া অধিদপ্তর এই আশংকার কথা জানিয়ে সতর্ক করেছে উপকূলীয় সবগুলো দেশকে।

এ সপ্তাহেই ভারতের গুজরাটে তান্ডব চালিয়েছে আরব সাগরে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড় তওতে। একই সময়ে বাংলাদেশ ও ভারতের পশ্চিমবঙ্গে তাপ প্রবাহ বয়ে যাচ্ছে। সমুদ্রের পানির তাপমাত্রাও বেশি থাকার কারণে ঘূর্ণিঝড়ের তৈরীর জন্য অনুকূল পরিবেশ তৈরী হচ্ছে।  এক্ষুণি নিশ্চিত করে বলা সম্ভব না হলেও ধারণা করা হচ্ছে ২৩ থেকে ২৫ মের মধ্যে ভারতের ওড়িশ্যা ও সুন্দরবনের (দুই দেশের) উপর আছড়ে পড়তে পারে ঘূর্ণিঝড় যশ। এরপর বাংলাদেশের দিকে ঘুরে যাবার আশংকা রয়েছে।

তবে ঘূর্ণিঝড়টির সম্ভাব্য গতিপথ ও শক্তির সম্পর্কে ধারণা পেতে আরো কয়েকদিন সময় লাগবে। সামনের কয়েকদিন তাপমাত্রা আরো বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। ২৩ তারিখে নিন্মচাপের অবস্থা দেখে তারপর সঠিকভাবে এর শক্তি ও গতিপথ বলা হবে। এদিকে নড়াইল ভিত্তিক বেসরকারী সংস্থা BWOT একই ধরণের পূর্বাভাস দিয়েছে। বর্তমানের মেঘের অবস্থা দেখে তারাও ধারণা করছে এ মেঘ ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হয়ে ২৬-২৯ মের মধ্যে ওড়িশ্যা, পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশের উপর আছড়ে পড়তে পারে। এর প্রভাবে ২৬-২৯ মে এ অঞ্চলগুলোতে ভারী বৃষ্টিপাত হতে পারে।

ছবি: BWOT

About Muhammad Hossain Shobuj

Check Also

পায়ে হেঁটে রংপুর বিভাগ ঘুরে দেখা – ৪র্থ দিন।

ট্যাক্সের হাট (বদরগঞ্জ) – পার্বতীপুর – চিরিরবন্দর – দিনাজপুর – বীরগঞ্জ ( ৪১.৫৪ + ২৭.৩২) …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *